রাতে পতিতা ও ছিনতাইকারীদের দখলে রূপগঞ্জ

0
105
শেয়ার করে সকল কে জানিয়ে দিনঃ

বিপ্লব হাসান, রূপগঞ্জ প্রতিনিধি: রাত হলেই একদিকে পতিতা ও ছিনতাইকারী অন্যদিকে পুলিশের চাঁদাবাজি রূপগঞ্জে ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের ভূলতা ও গোলাকান্দাইল দুই পাশেই রাত হলেই একদিকে পতিতা ও ছিনতাইকারী অন্যদিকে পুলিশের চাঁদাবাজি।

দিনে মানুষের পদচারণায় মুখরিত থাকলেও রাতে ভূলতা ও গোলাকান্দাইল মহাসড়কের চিত্র পাল্টে যায়। রাত হলেই ভূলতা ও গোলাকান্দাইল স্ট্যান্ড চলে যায় পতিতা আর ছিনতাইকারী ও পুলিশের দখলে। তাই রাতেই অনিরাপত্তার কারণে আসা-যাওয়া কমিয়ে দিয়েছে সাধারণ মানুষ। প্রতিদিন রাত হলেই দেখা যায় আর আর এফ পুলিশের চাঁদাবাজি।

শুক্রবার (২৬এপ্রিল ) রাতে সরেজমিনে ঘুরে এমনই চিত্র দেখা গেছে। রাতের আধাঁর নেমে আসার সঙ্গে সঙ্গে শুরু হয় এক অন্য রকম চিত্র। এই যেন নগর জীবনের এক ভয়ঙ্কর দৃশ্য। এর প্রধান কারণ একদিকে পতিতদের আহবানে সম্মান হারানো আর ছিনতাইকারীদের হাতে প্রয়োজনীয় জিনিসপত্র খোয়া যাওয়ার ভয়। এছাড়াও অন্যদিকে দেখা যায়, পুলিশে পতিতা ও ছিনতাইকারীদের আটক না করে মেতে উঠে চাঁদাবাজিতে।

ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের গোলাকান্দাইল চৌরাস্তা এলাকায় আর.আর.এফ. পুলিশের এ.এস.আই জহিরের নেতৃত্বে কনস্টেবলরা চাঁদাবাজিতে মেতে উঠেছে। কনস্টেবলরা হলেন, বোরহান,শরিফ,আরিফ,জাহিদ,জাকির ও মুরসালিনসহ আরোও অনেকে চাঁদাবাজিতে মেতে উঠছে। এছাড়াও আরো দেখা যায়, গোলাকান্দাইল চৌরাস্তার দুই পাশেই কিছু বখাটের আড্ডা।

একদিকে সুমি, জিয়াসমিন অন্যদিকে ঝড়না,পুতুলিসহ আরো অনেক পতিতা। এ সময় বাবা কিংবা স্বামীর সঙ্গে ওই রাস্তা দিয়ে যাওয়ার সময় অনেক নারীই হচ্ছেন অশালীন ভঙ্গি ও আহবানের শিকার। ফলে অনেকে রাতে ওই রাস্তা দিয়ে আসা যাওয়া করেন না। রাস্তার একদিকে বখাটেদের আড্ডা ও অন্যদিকে পতিতা-ছিনতাইকারীদের অবস্থান।

যুবক ও তরুনদের সামনে পেলেই অশালীন ইশারা করে তারা, সেই সাথে রয়েছে ছিনতাইকারীদের দৌরাত্ম । এসব কারণেই রাতে গাড়ি থেকে নামা এই স্ট্যান্ডে ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে উঠেছে। স্ট্যান্ডে অবস্থানরত ব্যবসায়ীদের সঙ্গে কথা হলে তারা জানান, প্রয়োজনের তাগিদে মানুষ আসে, আর এসেই পতিতা ও ছিনতাইকারীদের ফাঁদে পড়ে।

এ ব্যাপারে ভূলতা আর.আর.এফ পুলিশের ইনচার্জ টি.এস.আই.সাঈদ জানান, পতিতা ও ছিনতাইকারী তাড়ানের এবং ধরার দায়িত্ব আমার না। আমার পুলিশ চাঁদাবাজি করেন আমি স্বীকার করছি তবে তারা আমার কথা শোনেন না ।


শেয়ার করে সকল কে জানিয়ে দিনঃ