চেন্নাই থেকে আইপিএল ফাইনাল সরে যাবে হায়দরাবাদে

0
25
শেয়ার করে সকল কে জানিয়ে দিনঃ

ক্রাইম অনুসন্ধান ডেস্ক: গত আসরে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার সুবাদে চলতি মৌসুমের উদ্বোধনী এবং সমাপনী তথা ফাইনাল ম্যাচ আয়োজন করার সুযোগ দেয়া হয়েছিল চেন্নাইয়ের এমএ চিদম্বরম স্টেডিয়ামকে। তবে অবস্থাদৃষ্টে মনে হচ্ছে, উদ্বোধনী ম্যাচ সফলভাবে আয়োজন করলে, ফাইনাল ম্যাচটি হয়তো চেন্নাইয়ের মাঠে খেলানো হবে না।

এর দায় অবশ্য নিতে হবে স্টেডিয়াম কর্তৃপক্ষকেই। বেশকিছু কারণে চিদম্বরম স্টেডিয়ামের আই, জে এবং কে- এই তিনটি স্ট্যান্ড তথা গ্যালারিতে দর্শক প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে স্টেডিয়াম কর্তৃপক্ষ। যে কারণে আইপিএলের অন্য সব মাঠে গ্যালারিতে যখন দেখা যায় উপচে পড়া ভিড়, তখন চেন্নাইয়ের মাঠে খালি দেখা যায় এ তিনটি গ্যালারি।

যা কি-না আইপিএলের জনপ্রিয়তা এবং টিভিতে খেলা দেখা দর্শকদের আগ্রহের জন্য নেতিবাচক হিসেবেই উল্লেখ করেছে টুর্নামেন্ট আয়োজক কমিটি। তবে এখনই এ মাঠের ব্যাপারে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেয়নি আইপিএল গভর্নিং কাউন্সিল। অন্তত সামনের কয়েক দিনের মধ্যে বন্ধ থাকা তিন গ্যালারির সমস্যা সমাধান করতে সময় বেঁধে দেয়া হয়েছে চিদম্বরম স্টেডিয়ামকে।

তবে যদি এ তিন গ্যালারির কোনো সুরাহা না হয়, তাহলে পূর্বনির্ধারিত সূচি থেকে আইপিএল ফাইনাল চলে যাবে হায়দরাবাদের রাজীব গান্ধী আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে। এছাড়া এরই মধ্যে প্লে-অফের চার ম্যাচের জন্য সম্ভাব্য ভেন্যুও ঠিক করে ফেলেছে বিসিসিআই।

ব্যাঙ্গালুরুর চিন্নাস্বামী স্টেডিয়ামে কোয়ালিফায়ার-২ এবং এলিমিনেটর ম্যাচটি দিয়ে হায়দরাবাদের রাজীব গান্ধী আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে কোয়ালিফায়ার-১ এবং ফাইনাল ম্যাচ দুটি দেয়ার কথা ভাবছে বিসিসিআই। গত আসরের রানারআপ হওয়াতেই মূলত হায়দরাবাদকে বেছে নেয়া হয়েছে।

বিসিসিআইয়ের অ্যাডমিনিস্ট্রেশন কমিটির চেয়ারম্যান ভিনোদ রায় এ ব্যাপারে বলেন, ‘দেখুন স্টেডিয়ামের তিনটি গ্যালারিতে তালা ঝুলছে। এ ব্যাপারে স্টেডিয়াম কর্তৃপক্ষ আমাদের পরিষ্কার কিছুও বলছে না। তারা যদি আমাদের এ ব্যাপারে যথাযথ ব্যাখ্যা না দেয়, তাহলে এ মাঠে আমরা ফাইনাল খেলাতে পারবো না। পরিবর্তিত ভেন্যু হিসেবে হায়দরাবাদ এবং ব্যাঙ্গালুরুর কথা ভাবা হয়েছে।’


শেয়ার করে সকল কে জানিয়ে দিনঃ